বিশ্বে প্রথম ট্যাংগো মোবাইল আনছে লেনোভো।

নভেম্বরে বিশ্বের প্রথম ট্যাংগো স্মার্টফোন হিসেবে ফ্যাব টু প্রো বাজারে আনছে লেনোভো। লেনোভো এই ফোনটি গুগলের সঙ্গে মিলে তৈরি করছে। গুগলের ট্যাংগো প্রকল্পের অধীনে এই ফোনটি তৈরি হচ্ছে। থ্রিডি প্রযুক্তিকে মোবাইল ডিভাইসে ব্যবহার উপযোগী করে তুলতে প্রোজেক্ট ট্যাংগো নিয়ে কাজ করছে গুগল।

এ বছরের জুন মাসে লেনোভো টেক ওয়ার্ল্ডে এই স্মার্টফোনের ঘোষণা দেয় প্রতিষ্ঠানটি। সেপ্টেম্বর মাসে এটি বাজারে আসার কথা ছিল। কিন্তু বাজারে ছাড়ার তারিখ কিছুটা পিছিয়েছে। গুগলের এক কর্মকর্তা নভেম্বর মাসে এই ফোনটি বাজারে আসছে বলে নিশ্চিত করেছে।
এই ফোন দিয়ে একজন ব্যবহারকারী তাঁর চারদিকের ত্রিমাত্রিক (থ্রিডি) মানচিত্র তৈরি করতে পারবেন। এই থ্রিডি সেন্সর প্রতি সেকেন্ডে আড়াই লাখ বার ত্রিমাত্রিকভাবে দিক পরিবর্তন করতে পারবে। এখন পর্যন্ত জিপিএস চালু করতে হলে ঘরের বাইরে বের হতে হয়। কিন্তু এই সফটওয়্যারসহ স্মার্টফোন ব্যবহারকারী তাঁর নিজের ঘরের দেয়ালের দুই দিকই পর্যবেক্ষণ করতে পারবেন, যেটা আগে কখনো সম্ভব ছিল না।
লেনোভো ফ্যাব টু প্রোতে চারটি ক্যামেরা ব্যবহার করা হয়েছে। সামনে ৮ মেগাপিক্সেল, পেছনে ১৬ মেগাপিক্সেলের আরজিবি, একটি ডেপথ-সেনসিং ইনফ্রারেড ক্যামেরা ও একটি মোশন ট্র্যাকিং ক্যামেরা রয়েছে। স্মার্টফোনটিতে রয়েছে ছয় দশমিক চার ইঞ্চি মাপের কিউএইচডি ডিসপ্লে, কোয়ালকম স্ন্যাপড্রাগন ৬৫২ প্রসেসর ও চার জিবি র্যাম। ব্যাটারি হবে ৪০৫০ মিলিঅ্যাম্পিয়ার। স্মার্টফোনটির দাম হবে ৪৯৯ মার্কিন ডলার।
তথ্যসূত্র: এনডিটিভি।