ঘরেই হোক চুলের যত্ন ও কালার ।

মুখের মেকাপের পরেই চুল কালার এখন মেয়েদের নিত্য দিনের সঙ্গী । ছেলেরা করলেও মেয়েদের সংখ্যাই সবচেয়ে বেশি । আর অন্য দিকে বিভিন্ন পার্লারে গিয়ে চুলে কালার নিতে খরচ টা যেমন বেশি তেমনি সময় ও ঝামেলার ব্যাপার । তাই ঘরেই সেরে ফেলুন আপনার চুল পছন্দের রাঙানো রঙে ।
ঘরে বসে যাঁরা চুল রং করতে চান, প্রথমেই তাঁদের রং নির্বাচনের কথা মাথায় রাখতে হবে। অনেক সময় ত্বকের রঙের ওপর ভিত্তি করেও রং বাছাই করা হয়। যেমন যাঁদের ত্বকের রং চাপা, তাঁরা চুলে গাঢ় রং ব্যবহার করতে পারেন। তবে বাঙালিদের জন্য বারগেনডি রং ভালো মানায় হাইলাইটসের করার ক্ষেত্রে। সবাইতো পছন্দের মানুষের মন জয় করতেই বেশি ভালবাসেন, তাই নাহয় তাকেই জিজ্ঞেস করুন তিনি কি পছন্দ করেন ।
See More:
ঘরে চুল রং করার বেলায় কিছু সতর্কতা অবলম্বন করতে হয়ঃ
১ ঘরে বসে রং করার আগে প্রথমেই কী রং করা হবে, সেটা ঠিক করে নিন।
২ রং দেওয়ার সময় অবশ্যই গ্লাভস ব্যবহার করতে হবে আর ঘাড়ে একটি তোয়ালে রেখে দিতে হবে।
৩ যে রং ব্যবহার করা হবে তার সঙ্গে অবশ্যই ডেভেলপার মিশিয়ে নিন। রঙের সঙ্গে এটা থাকে।
৪ রং মেশানোর পর ব্রাশে একটু একটু রং নিয়ে চুল ভাগ করে রংটা লাগাতে হবে।
৫ রং লাগানোর পর শাওয়ার ক্যাপ অথবা তোয়ালে দিয়ে চুল পেঁচিয়ে রাখতে হবে।
৬ রঙের সঙ্গে যে নির্দেশনা দেওয়া থাকে, সেটার নিয়ম অনুযায়ী রং লাগাতে হবে। এরপর ধোয়ার সময় কন্ডিশনার ব্যবহার করতে হবে। শ্যাম্পু লাগবে না।
৭ ভালো ব্র্যান্ড বেছে নিতে হবে।
৮ কোনো রকম অ্যালার্জি থাকলে আগেই সাবধান হবেন।
৯ যদি বুঝতে অসুবিধা হয় তাহলে অবশ্যই পারলারের দক্ষ কর্মীদের দিয়ে রং করানো ভালো।

ভালো হেয়ার কালার ব্র্যান্ডঃ

আপনার চুল কালার করার ক্ষেত্রে আপনার পছন্দ অনুযায়ী ব্র্যান্ড বেছে নিন। কিছু জনপ্রিয় ব্র্যান্ড হল ।

০১. রেভলন

০২. গার্নিয়ার

০৩. স্ট্রিক্স

০৪. ওয়েলা কলেস্টিন্ট

০৫. লরিয়াল

০৬. ম্যাট্রিক্স

০৭. কালার মেট

০৮. ডক্টর জেইন’স


সতর্কতাঃ
০১. কারো কাছ থেকে নেয়া পরামর্শ এবং প্যাকেটের গায়ে লেখা নির্দেশনা বিপরীত হলে সবসময়-ই প্যাকেটের নির্দেশনা মেনে চলুন।
০২. ডাই এর প্রতি আপনি এলার্জিক কিনা তা দেখে নিন। দেখার জন্য কানের পিছনে ডাই লাগিয়ে ২০ মিনিট পর ধুয়ে নিন এবং ২৪ ঘণ্টা অপেক্ষা করে দেখুন কোন প্রতিক্রিয়া হয় কিনা।
০৩. আপনার চুল অনেক বেশি শুস্ক হলে ডাই দেয়ার এক সপ্তাহ আগে থেকে প্রতি রাতে চুলে কন্ডিশন করুন এবং হালকা গরম পানিতে ধুয়ে ফেলুন।
০৪. ডাই লাগানোর পর কোন জ্বালাপোড়া বা চুলকানি হলে সাথে সাথে ধুয়ে ফেলুন ।

⏬ নতুন দের জন্যহেয়ার কালার করার ভিডিও টিউটোরিয়ালঃ



তহ্যসুত্রঃ সাজগোজ, গানিয়ার হেয়ার কালার, প্রথম আলো, ইন্টারনেট, ইউটিউব । সমস্যা হলে বা ভাল লাগলে কমেন্ট করুন ।

Previous Post
Next Post